বৃহস্পতিবারের রাশিফল


মুহূর্তের খবর, ঢাকা

তারিখ: ২০১৫-০৪-৩০ | সময়: ০০:০৭:২৬

মুহূর্তের খবর রিপোর্ট॥

 মেষ (মার্চ ২১-এপ্রিল ১৯): প্রকৃতি আজ আপনার সহায় থাকবে। যেদিকে যাবেন সেদিকেই সূর্যের মত সাহায্যের কিরণ পাবেন। সমস্যা দেখা দেবে শুধু কর্মক্ষেত্রে। চেনাপরিচিত মুখগুলো ধুসর হতে থাকবে। আকৃতি বিকৃত হতে দেখে ভেঙে যাবে মন। মেঘলা দিন মোটেও মনের মতো থাকবে না। সাংসারিক কাজ নিয়ে আজ একটু ব্যস্ত হয়ে উঠবেন। দূর থেকে আসা আত্মীয় আপনাদের ভোগাবে। নতুন বাড়ির কাজে হাত দেওয়া হতে পারে। অর্থযোগের আশা আজ পুরাই বৃথা। দূরযাত্রা মনে শান্তি এনে দিতে পারে।

বৃষ (এপ্রিল ২০- মে ২০): দিনটি আপনার জন্য বড়ই সৌভাগ্যময়। রোমান্স, অর্থ এবং সৃষ্টিশীল গুণ আজ আপনাকে আলোকিত রাখবে সারাদিন। উত্তেজনার বসে মাঝে মাঝে নিজেকে অথর্বও মনে হতে পারে। আপনাকে আজ প্রিয় কোনো ব্যক্তিত্ব অভিনন্দন জানাতে পারে। রাতের ঘুমটিও খুব ভালো হওয়ার সম্ভাবনা। জমপেস দিনে জমপেস আড্ডাও হয়ে যাবে বন্ধুদের সঙ্গে। সব ভালোর মন্দ হল, দূরযাত্রায় আজকে কোনোমতেই যাওয়া ঠিক হবে না।

মিথুন (মে ২১- জুন ২০): স্বপ্নযোগে পাওয়া তথ্য বিভ্রান্তির মধ্যে ফেলে দিতে পারে। গতকালকের ভাবনা বারবার মনের জানালায় উকি দেবে। যদিও তা ভালো কোনো অনুভূতি দেবে না। অর্থভাগ্য মোটামুটি বেশ ভালোই বলা যায়। কর্মক্ষেত্রে আজ আপনার বিশেষ যোগ্যতা প্রকাশ পাবে। মনের মধ্যে প্রেমের উকি প্রখর হবে। পুরাতন শত্রু থেকে বিশেষভাবে সাবধান থাকতে বলা হচ্ছে।

কর্কট (জুন ২১- জুলাই ২২): অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু ফোন কল আপনাকে আজ বেশ বিরক্ত করতে পারে। আজ ভালোবাসার পালে পাবেন নতুন হাওয়া। অর্থভাগ্যে বিশেষভাবে মন্দা চলবে। যৌথবিনিয়োগ শুভ। আজ পুরনো বন্ধুদের কারো সংস্পর্শ পাবেন। পারিবারিক কাজের চাপ বেড়ে যাবে উল্লেখযোগ্যহারে। আজ সুফীবাদী চিন্তায় পেয়ে বসবে। ওপারের চিন্তাও আপনাকে মোটামুটি অস্থির করে রাখবে।

সিংহ (জুলাই ২৩- আগস্ট ২২): চাকরি বা ব্যবসা সংক্রান্ত চাপ আপনাকে নাজেহাল করে ছাড়বে। আজ হঠাৎ মনে হতে পারে সব সফলতায় হাতের নাগালের বাইরে। পাওনা অর্থ আজ ফেরত পাওয়াটা আপনার জন্য অবধারিত হয়ে যাবে। আপনার ভেঙে যাওয়া স্বপ্নের কিছু কিছু আজ জোড়া লাগবে অভাবনীয়ভাবে। বেকারদের কারো চাকরির সুযোগ এসে যাবে হাতের মুঠোয়। আপনার সমস্ত প্রচেষ্টা দিয়ে অনুভূতির কোনোটিই আজ বাদ দিতে চাইবেন না। ভালোবাসার লাল গোলাপের রং ফিকে হতে চলেছে। তাই অতিদ্রুত মনোযোগ ফিরিয়ে আনুন।

কন্যা (আগস্ট ২৩- সেপ্টেম্বর ২২): মনের সব কোমলতা দিয়ে তাকে আলিঙ্গন করতে সারাদিন ব্যাকুল হয়ে থাকবেন। নিজেকে আজ পৃথিবীর কোনো ঝামেলায় জড়াতে মন চাইবে না। গৎ বাধা কাজের বাইরে নিজেকে আবিষ্কার করাটাও অস্বস্তিকর লাগবে। একঘেঁয়ে কাজে আজ পরম প্রশান্তি মিলবে। অর্থভাগ্য দারুন। দূরযাত্রায় মন টানবে না, যেতেও মানা। জাতিকার কারো বিশেষ সম্মানে ভূষিত হবেন।

তুলা (সেপ্টেম্বর ২৩- অক্টোবর ২২): নিজেকে সব সময়ই নিষ্পাপ শিশুর মতো ভাবতে ভালো লাগে। বিশেষ কারো সঙ্গে আজ পরিচয় ঘটে যাবে কোনো এক বন্ধুর মাধ্যমে। আপনার মধ্যে লুকায়িত কিছু গুণের আজ প্রকাশ পাবে উন্মুক্ত সভায়। নিজের অজানা গুণের প্রকাশে সম্মাননা গ্রহণকে অযথা মনে হতে পারে। কিন্তু ভাই তুলা এটা আপনারই প্রাপ্য। প্রেমের ক্ষেত্রে দিনটি বিশেষভাবে শুভ।

বৃশ্চিক (অক্টোবর ২৩- নভেম্বর ২১): আজকের দিনের দাওয়াতকে কোনোভাবেই এড়িয়ে যাওয়া আপনার জন্য উচিৎ হবে না। কারণ সেখানে আপনার জন্য অপেক্ষা করছে অজানা কোনো দারুন অনুভূতি। কর্মক্ষেত্রে আজ অনাকাঙ্ক্ষিত কোনো ঘটনার সম্মুক্ষিণ হতে পারেন। বিদেশী কোনো অংশীদারের সঙ্গে নতুন ব্যবসার সূত্রপাত ঘটতে পারে। পারিবারিক ঝামেলার নিষ্পত্তি ঘটবে।

ধনু (নভেম্বর ২২- ডিসেম্বর ২১): যাদের ভেতর দুজন মানুষ বাস করে, তাদের ভেতরকার যুদ্ধের ছাপ পড়তে থাকে চারপাশের মানুষের ওপর। তখন সে দ্বৈত সত্তার মানুষটি ক্রমেই সবার অপ্রিয় হতে থাকেন। কেন আপনাকে আর কারও বলে দিতে হবে যে, আপনি তেমনই একজন মানুষ হয়ে উঠছেন, যার উপস্থিতি যখন তখন চাইছেন না বন্ধুরা? কিছুদিন দূরত্ব বজায় রাখলেই পারেন।

মকর (ডিসেম্বর ২২- জানুয়ারি ১৯): নিজের ভার বুঝে চলছেন না ইদানীং। আপনাকে খেলো হতে দেখাটা কাছের মানুষদের জন্যে সইতে না পারা নির্যাতনের মতো। আপনার ব্যক্তিত্বে বৈচিত্র্য আনতে হয়ত বাইরের রঙের শরণাপন্ন হতে চাইছেন। কিন্তু ভেতরের রঙটাকে বদলালে সে বৈচিত্র্য অর্জনের কাজটি আরও সহজ হতো। দূরের ভ্রমণ হচ্ছে ব্যক্তিত্বে বৈচিত্র্য আর উদারতা আনার অন্যতম উপায়।

কুম্ভ (জানুয়ারি ২০- ফেব্রুয়ারি ১৮): দেখুন মানুষ প্রকৃতির বাইরের কোনো অতিপ্রাকৃতিক সৃষ্টি নয়। যে কারণে পৃথক কোনো অহঙ্কারে ভোগার কোনো অবকাশ নেই। লক্ষ্য করলে দেখতে পাবেন, কোনো কোনো মানুষ খুব গোপনে আপনার মনোযোগ প্রত্যাশা করছে। এমন কেউ, যার কাছে আপনার মতামতের গুরুত্ব খুব সহজে ধরা পড়ে না, মনে হয়, সে আপনাকে একটু যেন অবহেলা করছে।

মীন (ফেব্রুয়ারি ১৯- মার্চ ২০): সবাইকে জীবনের কোনো এক সময় বুঝতে হয়, পৃথিবীতে কোনো লক্ষ্যেরই কোনো সংক্ষিপ্ত পথ নেই। সেটা ধনবান হওয়া থেকে শুরু করে কারও মন জয় করা পর্যন্ত সত্য। অন্তর্দ্বন্দ্বে ভুগতে থাকা মানুষের একটা বিচ্ছিন্ন সুবিধে রয়েছে। ধারণা করা হয়, এরা অন্য অনেকের চেয়ে সৃজনশীল হয়ে থাকেন। তবে আত্মহত্যাপ্রবণতা এদের বেশি। আপনার খুব যত্নের কোনো মানুষ এমন ঝুঁকিতে আছেন।

মুহূর্তের খবর/২০১৫/অপ





Comment Disabled

Comments